সাংবাদিকদের লিখনির মাধ্যমেই দেশের মানুষ আইনের সুফল সম্বন্ধে জানতে পারবে-প্রধান তথ্য কমিশনার

42

 

মৌলভীবাজার :  প্রধান তথ্য কমিশনার মরতুজা আহমদ বলেছেন – এদেশের মানুষ অবাধ তথ্য পাওয়ার জন্য ২০০৯ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা তথ্য অধিকার আইন প্রণয়ণ করেন।  বর্তমান আইনে দেশের আপামর মানুষ আইন সম্পর্কে জানা অধিকার রাখে।

তিনি বলেন আইনে বলা আছে, দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তাগণ স্বপ্রণোদিত হয়ে তথ্য প্রকাশ করে জনগণকে জানাতে হবে। পচিশ হাজারেরও বেশি ওয়েবসাইট নিয়ে তথ্য মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটটি রয়েছে।  যেখানে প্রবেশ করলে বিশ্বের সবকিছুই জানা যাবে, সমাজে অবহেলিত ও পিছিয়ে পড়া জনগণকে এই তথ্য আইন সম্বন্ধে জানতে হবে, কারণ তাঁদের জন্যই এই আইন করা হয়েছে।

সাংবাদিকরা তথ্য অধিকার আইন বাস্তবায়নে অনেক কিছু করেছেন,  এআইন সম্পর্কে তাদের অনেক কিছু জানা আছে, সাংবাদিকদের লিখনির মাধ্যমেই দেশের আপামর মানুষ আইন সম্বন্ধে, আইনের সুফল সম্বন্ধে জানতে পারবে।

বৃহস্পতিবার বিকেলে মৌলভীবাজার সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় অডিটোরিয়ামে জেলা প্রশাসন ও তথ্য কমিশনের আয়োজনে ‘তথ্য অধিকার আইন ২০০৯ ও আরটিআই অনলাইন ট্রাকিং সিস্টেম ’ বিষয়ক সর্বসাধারণের অবহিতকরণ কর্মশালায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মৌলভীবাজার জেলা প্রশাসক নাজিয়া শিরিনের সভাপতিত্বে এবং জেলা শিশু বিষয়ক কর্মকর্তা জসিম উদ্দিন মাসুদের সঞ্চালনায় কর্মশালায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, সিলেটের বিভাগীয় কমিশনার মো. মশিউর রহমান এনডিসি, তথ্য কমিশনের উপ-পরিচালক এ কে এম তরিকুল আলম, তথ্য কমিশনের পরিচালক (প্রশাসন) জে আর শাহরিয়ার, জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা খোদেজা খাতুন, পুলিশ সুপার মো. ফারুক আহমেদ পিপিএম (বার) ।

অনুষ্ঠানে জেলা তথ্য কর্মকর্তাবৃন্দ, জেলা সমাজসেবা কর্মকর্তাবৃন্দ,  কৃষি অধিদপ্তরের কর্মকর্তাবৃন্দ, প্রশাসনের উর্ধতন কর্মকর্তা ও সাংবাদিকসহ ১৫০জন এই অবহিতকরণ কর্মশালায় অংশগ্রহন করেন।

: MB TV মৌলভীবাজার :