শেখ হাসিনা নারীর ক্ষমতায়নে রাখছেন অভূতপূর্ব অবদান: প্রতিমন্ত্রী ইন্দিরা

27

MB সিলেট প্রতিবেদক :  মহিলা ও শিশু বিষয়ক প্রতিমন্ত্রী ফজিলাতুন নেসা ইন্দিরা এমপি বলেছেন, নারীদের যথাযথ সম্মানের জায়গায় নিয়ে যেতে প্রথম এ দেশে বঙ্গবন্ধুই উদ্যোগি হন। আর তার সুকন্যা বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা নারীর ক্ষমতায়নে রাখছেন অভূতপূর্ব অবদান। পিতা হারানো সকল নারীর পিতা হচ্ছেন জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। বৃহস্পতিবার (৬ ফেব্রুয়ারি) মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর ও বিভাগীয় কমিশনার কার্যালয়, সিলেট এর আয়োজনে সিলেট বিভাগীয় পর্যায়ে নির্বাচিত শ্রেষ্ঠ জয়িতাদের সংবর্ধনা প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

সিলেট বিভাগীয় কমিশনার  মো. মশিউর রহমানের (এনডিসি) সভাপতিত্বে বিভিন্ন ক্ষেত্রে অবদানের জন্য তৃণমূলের নারীদের সম্মাননা জানানোর একটি উদ্যোগ, তোমরাই বাংলাদেশের বাতিঘর এই স্লোগানে বৃহস্পতিবার সকাল ১০টায় সিলেট কবি নজরুল অডিটোরিয়ামে সিলেট বিভাগের শ্রেষ্ট জয়িতা সংবর্ধনা-২০১৮ অনুষ্ঠিত হয়।

 

সিলেট জেলা কালচারাল অফিসের অসিত বরণ দাস গুপ্ত এবং মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের শিশু সুরক্ষা কর্মকর্তা প্রিয়াংকা দাস রায়ের যৌথ সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন মৌলভীবাজার-হবিগঞ্জ সংরক্ষিত আসনের সংসদ সদস্য সৈয়দা জোহরা আলাউদ্দিন,  সংসদ সদস্য শামীমা আক্তার খানম , সাবেক সংসদ সদস্য সৈয়দা জয়বুনেচ্ছা হক , মহিলা ও শিশু বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব কাজী রওশন আক্তার , মহিলা বিষয়ক অধিদপ্তর মহাপরিচালক (গ্রেড-১) পারভীন আকতার।

পাঁচ ক্যাটাগরিতে সিলেট বিভাগের ৪ জেলায় ৫ জন করে জেলা পর্যায়ে ২০ জন ও বিভাগীয় পর্যায়ে ৫ জন- মোট ২৫জন নির্বাচিত নারীকে প্রদান করা হয় শ্রেষ্ঠ জয়িতার সংবর্ধনা ও পুরস্কার।  অনুষ্ঠানে অতিথিদের হাত থেকে নির্বাচিত জয়িতারা পুরস্কার ও সম্মাননা ক্রেস্ট গ্রহণ করেন।

সিলেট বিভাগে ৫ ক্যাটাগরিতে নির্বাচিত ৫ শ্রেষ্ঠ জয়িতা হলেন- অর্থনৈতিক সাফল্যের জন্য সিলেটের মিনারা বেগম, শিক্ষা ও চাকরি ক্ষেত্রে সফলতার জন্য মৌলভীবাজারের নাজমীন আক্তার, সফল জননী হিসেবে সিলেটের শামসুন্নাহার চৌধুরী এবং সমাজ উন্নয়নে বিশেষ অবদান রাখায় সিলেটের আছিয়া খানম শিকদার।