আবদুল মোনেম ইকোনমিক জোনে হোন্ডার নতুন কারখানা উদ্বোধন

50

:: MB TV ডেস্ক ::

রাজধানীর অদূরে মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া চরবাউসিয়া এলাকায় আবদুল মোনেম ইকোনমিক জোনে নিজস্ব জমিতে নতুন মোটরসাইকেল কারখানা উদ্বোধন করেছে জাপানভিত্তিক হোন্ডা মোটর কোম্পানি এবং বাংলাদেশ ইস্পাত ও প্রকৌশল করপোরেশনের (বিএসইসি) যৌথ মালিকানাধীন প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ হোন্ডা প্রাইভেট লিমিটেড (বিএইচএল)। বর্তমানে কারখানাটিতে বছরে এক লাখ মোটরসাইকেল উৎপাদন করা যাবে। ২০২১ সাল নাগাদ এ সক্ষমতা বছরে দুই লাখে উন্নীত করার পরিকল্পনা রয়েছে বলে প্রতিষ্ঠানটির বিনিয়োগকারীরা জানিয়েছেন।

গতকাল ২৫ একর জমির ওপর প্রায় ২৩০ কোটি টাকা ব্যয়ে গড়ে তোলা বিএইচএল কারখানাটির আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হয়। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু, সংসদ সদস্য সাবের হোসেন চৌধুরী, বাংলাদেশ অর্থনৈতিক অঞ্চল কর্তৃপক্ষের (বেজা) নির্বাহী চেয়ারম্যান পবন চৌধুরী, বিএসইসির চেয়ারম্যান ও বিএইচএল পরিচালনা পর্ষদের সদস্য মিজানুর রহমান এবং বাংলাদেশে নিযুক্ত জাপানের রাষ্ট্রদূত হিরোয়াসু ইজুমি। হোন্ডার ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারাও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

নতুন কারখানায় হোন্ডার উৎপাদন শুরু হয় গত মাসেই। এ কারখানায় জাপানের হোন্ডা মোটর কোম্পানির কারিগরি সহায়তায় স্থানীয়ভাবে ঝালাই ও পেইন্টিংয়ের কাজ হয়। প্রাথমিকভাবে বিএইচএল স্থানীয়ভাবে মোটরসাইকেলের বডি ফ্রেম ও সুইং আর্ম তৈরি করলেও শিগগিরই অন্যান্য অংশের উৎপাদন শুরু করবে।

শিল্পমন্ত্রী আমির হোসেন আমু বলেন, পাঁচ বছরেই লাভজনক প্রতিষ্ঠানে পরিণত হওয়া প্রতিষ্ঠানটি আজ সরকারের নীতিমালা অনুসরণ করে নিজস্ব জায়গায় সংযোজন থেকে ম্যানুফ্যাকচারিং কার্যক্রমে পদার্পণ করেছে। প্রাথমিকভাবে এ কারখানায় বিনিয়োগের পরিমাণ ছিল ৬১ কোটি টাকা। বর্তমানে এটি বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৯৮ কোটি টাকা। মন্ত্রী আরো বলেন, শিল্প মন্ত্রণালয় জাতীয় মোটরসাইকেল শিল্প উন্নয়ন নীতি-২০১৮ প্রণয়ন করেছে। এরই মধ্যে এ খাতে দেড় হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ হয়েছে। ভবিষ্যতে বাংলাদেশের চাহিদা মিটিয়ে বিদেশেও বাংলাদেশে উৎপাদিত মোটরসাইকেল রফতানি হবে বলে আশা প্রকাশ করেন তিনি।